Monday , June 18 2018
Home / বাংলাদেশ / রংপুর বিভাগ / স্কুলে নাশকতা, সন্দেহে জামায়াত-শিবির ও জঙ্গিরা

স্কুলে নাশকতা, সন্দেহে জামায়াত-শিবির ও জঙ্গিরা

গাইবান্ধা প্রতিনিধি: গাইবান্ধার সদর উপজেলার কামারজানি ইউনিয়নের ব্রহ্মপুত্র নদী চরাঞ্চলের কুন্দেরপাড়ার গণ উন্নয়ন একাডেমী হাইস্কুল দুর্বৃত্তদের দেয়া আগুনে পুড়ে গেছে।

স্থানীয় লোকজন আগুন নেভানের চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়েছে। আগুনে স্কুলের ১০টি কক্ষ, আসবাবপত্র, শিক্ষা সরঞ্জাম, শিক্ষার্থীদের ১৩ বছরের অন্তত ২০ হাজার স্কুল সার্টিফিকেট ও একটি এনজিওর অফিস ভস্মিভুত হয়। এতে প্রায় কোটি টাকার মালামাল ও শিক্ষার্থীদের সার্টিফিকেটসহ মুল্যবান কাগজপত্র পুড়ে ছাঁই হয়ে গেছে।

এ অগ্নিকাণ্ডের পেছনে পাশের চর পারদিয়ারায় নতুন স্কুল স্থাপন সংক্রান্ত ঘটনার জের এবং পুলিশের অভিযানের মুখে দুর্গম চরে আশ্রয় নেওয়া জামায়াত-শিবির জঙ্গি গোষ্টীগুলোর নাশকতা বলেও ধারণা করা হচ্ছে।

গাইবান্ধা সদর থানার ওসি মেহেদী হাসান ভস্মিভুত স্কুল পরিদর্শন শেষে রোববার রাত ১০টার দিকে এই মন্তব্য করেন। তিনি জানান, ইতিমধ্যে স্কুল পুড়ে যাওয়ার ঘটনার রহস্য উদঘাটনে তদন্তে নেমেছে পুলিশ। তারা পাশের চর পারদিয়ারায় নতুন স্কুল (প্রস্তাবিত) ও জামায়াত-শিবির জঙ্গিগোষ্ঠীর বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে তদন্ত করছে।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, পুলিশের গ্রেফতার এড়াতে ওই দুর্গম চরে আশ্রয় নেয় জামাত-শিবির কর্মীরা এই নাশকাত করে থাকতে পারে। তা ছাড়া পাশ্ববর্তী সুন্দরগঞ্জ এলাকার সরকার দলীয় সংসদ সদস্য মঞ্জুরুল ইসলাম লিটনকে গুলি করে হত্যাসহ একের পর এক নাশকতা চালাচ্ছে। এরই অংশ হিসেবে জামায়াত-শিবির স্কুলটি পুড়িয়ে দিতে পারে।

গাইবান্ধা জেলা নাগরিক কমিটির আহ্বায়ক আমিনূল ইসলাম গোলাপ জানান, তিনি এলাকাবাসীর অভিযোগের সঙ্গে একমত পোষণ করে বলেন, কুন্দেরপাড়া গণ উন্নয়ন একাডেমী স্কুলের বিরোধীতা করে তার পাশের চর পারদিয়ারায় নতুন স্কুল স্থাপন করা হচ্ছে। এ স্কুল প্রতিষ্ঠার নামে কেউ কেউ কুন্দেরপাড়া হাইস্কুলটি ধ্বংস করার ষড়যন্ত্রে মেতে উঠতে পারে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা দরকার।

এছাড়াও, আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী সম্প্রতি দুর্গম চরে বেশ কিছু এলাকায় জঙ্গি বিরোধী অভিযান চালিয়েছে। এ ক্ষেত্রে মানুষের আনাগোনায় স্বার্থের ব্যাঘাত ঘটায় জঙ্গিরা স্কুলটির উপর তাদের ক্ষোভ মিটিয়েছে কি-না তা জানা দরকার।

অপরদিকে, গণ উন্নয়ন একাডেমী স্কুলটি পুড়ে দেওয়ার প্রতিবাদে ফুঁসে উঠেছে গাইবান্ধাবাসী। তারা এ ঘটনার প্রতিবাদে জেলা শহরের ডিবি রোডে রোববার মুখে কালোকাপড় বেঁধে মানববন্ধন করেছেন। এতে এলাকার সর্বস্তরের মানুষ অংশ নেয়।

গত বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে কুন্দেরপাড়া গণ উন্নয়ন একাডেমী হাইস্কুলে দাহ্য পদার্থ দিয়ে অগ্নিসংযোগ করে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা। আগুনের খবর পেয়ে শুক্রবার ভোর থেকেই স্কুলের কয়েকশ শিক্ষার্থী, শিক্ষক, এলাকাবাসী ঘটনাস্থলে এসে কান্নায় ভেঙে পড়েন। এই ঘটনায় জেলার প্রশাসনিক কর্মকর্তারা তাদের সান্তনা দেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*